প্রকাশনার ১৫ বছর

রেজি নং: চ/৫৭৫

১৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
১১ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

বাড়তি ভাড়া এড়াতে এ কী করলেন নারী বিমানযাত্রী?

admin
প্রকাশিত
বাড়তি ভাড়া এড়াতে এ কী করলেন নারী বিমানযাত্রী?

বিমানযাত্রীদের ভ্রমণের আগে ও পরে সবচেয়ে বেশি যে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেন তা হলো লাগেজের ওজন।

বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষকে ফাঁকি দিতে নানা সাইজের মোট আড়াই কেজি পোশাক পরে ফেললেন তিনি।

এমন মজার ঘটনাটি ঘটেছে ফিলিপিন্স বিমানবন্দরে। জেল রডরিগ নামের ওই নারী বিমানযাত্রী এ কাণ্ডটি করেন।

তার এই ফাঁকি দেয়ার নতুন কৌশল ধরা পড়তেই অবাক হয়েছেন ফিলিপিন্স বিমানবন্দরের কর্তৃপক্ষ।

আর বিষয়টি তারা নেট দুনিয়ার ভাইরাল করে দেন।

বিষয়টি নিয়ে যখন হাস্যরসে মেতে ওঠেন সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা তখন উপায় না দেখে পুরো ঘটনা ফেসবুকে নিজেই ফাঁস করেন জেল রডরিগ।

ঘটনার বিবৃতি দিয়ে জেল বলেন, সেদিন আমার সঙ্গে ৯.৫ কেজি ওজনের স্যুটকেস ছিল। কিন্তু ৭ কেজির বেশি ব্যাগেজ নিয়ে বিমানে ওঠার নিয়ম নেই। বাড়তি লাগেজ মানেই বাড়তি ভাড়া। আমি কেন সেই বাড়তি পয়সা খরচ করতে যাব? ৯.৫ কেজি ওজনের ব্যাগ থেকে ঝটপট আড়াই কেজির পোশাক গায়ে জড়িয়ে নিই। লাগেজের ওজন একধাক্কায় ৬.৫ কেজিতে নেমে আসে। এবার বলুন বুদ্ধিটা কেমন ছিল?

অর্থাৎ লাগেজ ছোট করতে আড়াই কেজি ওজনের বাড়তি পোশাক পড়েছিলেন এই তরুণী।

কী কী পোশাক পড়েছিলেন সেদিন জেল রডরিগ? তিনি জানান, পাঁচটি-শার্ট, তার ওপর একটি জ্যাকেট! আর সেদিন প্যান্ট পরেছিলেন পাঁচ জোড়া!

এসব পরে ছবি তুলে নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে পোস্টও করেছেন এই তরুণী। ক্যাপশনে লিখেছেন, #ExcessBaggageChallengeAccepted,”

তার এমন কাজে বেশ মজা পেয়েছেন নেটিজেনরা। ছবিসহ বিষয়টি পোস্ট করতেই সেটি ভাইরাল হয়ে যায়। ২০ হাজার বার শেয়ার হয়েছে প্রথম দিনেই। রি-অ্যাকশন ৩৩ হাজার জনের।

তবে পোস্টের কমেন্টে জেল জানিয়েছেন, অপারগতাবশত এই কাজটি করেছেন তিনি। তবে অন্যরা যাতে এমন কাজ না করেন সেই অনুরোধ জানান জেল।

কারণ হিসেবে তিনি জানান, এটা ছিল খুবই অসস্তিকর ও স্বাস্থ্যের চরম ক্ষতি।

তিনি বলেন, ভীষণ গরমে কষ্ট পেয়েছি আমি। ত্বকেরও ক্ষতি হয়েছে। তাই এই কষ্ট অন্যেরা না কলেই বেশি খুশি হব।

সংবাদটি শেয়ার করুন।